ম্যাচ বাতিল করায় আর্জেন্টিনাকে ফিলিস্তিনের ধন্যবাদ 

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক
টাইম নিউজ বিডি,
০৬ জুন, ২০১৮ ১৬:১৫:৪০
#

হুমকি ও সমালোচনার শিকার হবার আশঙ্কায় ইসরায়েলের সঙ্গে বিশ্বকাপের পূর্বে প্রীতি ম্যাচ বাতিল করেছে আর্জেন্টিনা ফুটবল দল। 


আগামী ৯ জুন জেরুজালেমের টেডি স্টেডিয়ামে ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল।


আর্জেন্টিনার ক্রীড়া সংস্থার ওয়েবসাইট মিনুতুনোতে জানানো হয়, জেরুজালেমে আগামী শনিবারের নির্ধারিত ম্যাচটি বাতিল করা হয়েছে। সহিংসতা বৃদ্ধি সেইসাথে দলের অধিনায়ক লিওনেল মেসিকে হুমকি ও সমালোচনার শিকার হবার আশঙ্কায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।


ম্যাচ বাতিলের ঘোষণা দেয়ার পরই এএফইকে দেয়া তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় ফিলিস্তিন ফুটবল ফেডারেশনের আন্তর্জাতিক বিভাগের পরিচারক সুসান শালাবি জানান, রাজনৈতিক অস্থিরতার ভেতর ইসরায়েলে খেলতে না আসার জন্য আর্জেন্টিনা দলকে অনেক ধন্যবাদ। খেলার সঙ্গে যে রাজনীতি মেশানো, এটি একটি উদাহরণ হয়ে থাকবে বিশ্বের কাছে।


শালাবি আরও জানান, ইসরায়েলের সঙ্গে পৃথিবীর অন্য কোথাও খেলা হলে সেটি নিয়ে শালাবির কোনও আপত্তি নেই।  



এর আগে মঙ্গলবার বার্সেলোনায় আর্জেন্টিনার প্রশিক্ষণ ক্যাম্পের সামনে আর্জেন্টিনার জার্সিতে রক্ত লাগিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করা হয়।


এদিকে ইসরায়েলের সঙ্গে প্রীতি ম্যাচটি বাতিল হওয়ায় আর্জেন্টিনা একই দিনে আরেকটি প্রীতি ম্যাচ খেলার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। যেটি অনুষ্ঠিত হবে বার্সেলোনায়। সম্ভাব্য প্রতিপক্ষ হিসেবে ইউরোপের দেশ মলদোভা, সান মারিনো, মাল্টা ও লিচেনস্টেইন এই ৪ দেশের যে কোনও একটি দেশকে বিবেচনা করা হচ্ছে।


উল্লেখ্য, পবিত্র ভূমি হিসেবে পরিচিত জেরুজালেম ইসলাম ধর্মাবলম্বী মানুষের পবিত্র স্থান। গত বছরের ৬ ডিসেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জেরুজালেমকে ইসরায়েলের একক রাজধানীর স্বীকৃতি দেন। বিশ্বজুড়ে নিন্দা আর তুমুল প্রতিবাদের মধ্যেও দূতাবাস স্থানান্তরের সিদ্ধান্তে অনড় থাকে যুক্তরাষ্ট্র।


ফিলিস্তিনিদের ব্যাপক বিক্ষোভের মধ্যেই ১৪ মে জেরুজালেমে দূতাবাস স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করে যুক্তরাষ্ট্র। ওই দিন ইসরায়েলি গুলিতে নিহত হন অন্তত ৬০ জন ফিলিস্তিনি।


অবশেষে ফিলিস্তিনি তথা পুরো বিশ্বের মানুষের বিক্ষোভের জেরে সেই প্রীতি ম্যাচটি বাতিল করলো আর্জেন্টিনা। যার জন্য পুরো ফিলিস্তিনিবাসীর কাছ থেকে ধন্যবাদ পেলো মেসিরা।


এমবি         

Print