‘নভেম্বরেই খুন করা হবে নরেন্দ্র মোদীকে’

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক
টাইম নিউজ বিডি,
১৫ অক্টোবর, ২০১৮ ১৪:০৪:২৬
#

এই বছরের নভেম্বরেই খুন করা হবে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে। এক লাইনের এই হুমকি ইমেল পেলেন দিল্লি পুলিশের কমিশনার অমূল্য পট্টনায়েক।


তাঁর সরকারি ইমেল আইডিতেই এই হুমকি চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে। খবর ভারতীয় পত্রিকা আনন্দবাজার।  


হুমকি চিঠি পাওয়ার পরই প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা কর্মীদের সতর্ক করা হয়েছে। বছরের শেষেই পাঁচ রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন। তাই নভেম্বরে দেশজুড়ে একাধিক জনসভা ও মিছিল করার কথা প্রধানমন্ত্রীর। সেই কারণেই নভেম্বর মাসটিকে টার্গেট করছে জঙ্গিরা, এমনটাই অনুমান গোয়েন্দাদের।


ইমেল পাওয়ার পরই দেশজুড়ে সক্রিয় গোয়েন্দাদের নেটওয়ার্ক। কারা মোদীকে খুন করার ষড়যন্ত্র করছে, তা এখনও জানা যায়নি। যদিও হুমকি ইমেলটি যে সার্ভার থেকে পাঠানো হয়েছে, সেই সার্ভারটিউত্তরপূর্ব ভারতের অসমেঅবস্থিত বলে প্রাথমিক তদন্তে জানতে পেরেছেন গোয়েন্দারা।


প্রধানমন্ত্রীকে খুনের হুমকি অবশ্য এই প্রথম নয়। এই বছরের জুনেই একটি গোপন চিঠি উদ্ধার করার কথা জানিয়েছিল পুণে পুলিশ। সেই চিঠিতে মোদীকে খুন করার ছক লেখা ছিল, এমনটাই জানানো হয়েছিল পুলিশের তরফে। সেক্ষেত্রে অবশ্য সন্দেহের তির ছিল মাওবাদীদের দিকেই। জানা গিয়েছিলরাজীব গাঁধীর স্টাইলেই মোদীকে সরানোর ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে।


মহারাষ্ট্রে ভিমা কোরেগাঁও দাঙ্গার তদন্ত করতে গিয়েই এই চিঠিটি হাতে এসেছিল গোয়েন্দাদের। ১৮ এপ্রিল, ২০১৭ সালে লেখা এই চিঠিটি পাওয়া গিয়েছিল রোনা উইলসন নামের এক সমাজকর্মীর দিল্লির বাড়ি থেকে। অন্তত পুণে পুলিশের দাবি এরকমই ছিল। ভিমা কোরেগাঁও কাণ্ডে রোনা উইলসন-সহ আরও পাঁচ সমাজকর্মীকে জুনেই গ্রেফতার করা হয়েছিল। তখনই মোদীকে হত্যার ষড়যন্ত্রের কথা প্রথম সামনে আসে।


সেই চিঠিটি লিখেছিল ‘আর’নামের এক ব্যক্তি। তা লেখা হয়েছিল কমরেড প্রকাশ নামের কোনও একজনকে। চিঠিতে রোড শো চলাকালীন নরেন্দ্র মোদীকে রাজীব গাঁধী স্টাইলে হত্যা করার কথা বলা হয়েছিল।


পুণে পুলিশ এই দাবি করলেও অনেকেই অবশ্য এই দাবির সত্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন। ভিমা কোরেগাঁও কাণ্ড থেকে মুখ ঘুরিয়ে দিতেই প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার ষড়যন্ত্রের গল্প সামনে আনছে পুনে পুলিশ, এই অভিযোগও আনেন অনেকেই।  


এমবি  

Print