বাগেরহাটে জনতার হাতে ধরা পড়ল ছিনতাইকারী জালাল

খুলনা করেসপন্ডেন্ট
টাইম নিউজ বিডি,
০৫ নভেম্বর, ২০১৮ ০৩:০৯:০৪
#

বাগেরহাট সদর উপজেলার গোটাপাড়া ইউনিয়নের কান্দাপাড়া বাজারে ছিনতাই করার সময় জনতার হাতে ধরা পরে বেশরগাতী নিবাসি খবির উদ্দীনের পুত্র শাহ জালাল ওরফে শাহা।পরে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।


স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, এর আগে গত শুক্রবার কয়েখা গ্রামে জমি ও সরকারী খাল দখল করতে গেলে বিষ্ণপুর ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ড এর মেম্বর আব্দুল লতিফ বাধা দেয়। পরে তাকে মারধর করে জোর করে দখল নেয় সরকারী খাল ও মাছের ঘের।


আরো জানা যায়, মেম্বর আব্দুল লতিফ বাদী হয়ে বাগেরহাট সদর থানায় ৬ জনকে উল্লেখ করে চাদাবাজির মামলা দায়ের করেন। বাগেরহাট সদর থানা সূত্রে জানা যায়, দায়ের করা মামলা নং ০১। এ মামলার আসামিরা হলেন বেশরগাতী গ্রামের খবির উদ্দীনের ৩ পুত্র মতিউর রহমান ওরফে মতি,তার ভাই মাস্তু ও ছোট ভাই শাহ জালাল ওরফে শাহা।


ইতোমধ্যে শাহাকে এ মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে জেল হাজতে পাঠিয়েছে সংশ্লিষ্ট থানা। অপর আসামি হলেন কয়েখা গ্রামের ইখলাছুর রহমানরে পুত্র সোহেল ওরফে রাজিব, একই গ্রামের কেরামত আলীর পুত্র মাহবুল্লা ও আজিজ মল্লিকের পুত্র জসিম।


স্থানীয় সুত্রে জানা আরো জানা যায়, দীর্ঘদিন যাবত এ সন্ত্রাস গ্রুপ এই এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব চালিয়ে আসছে এর আগে বেশ কয়েকবার এদের বিচার করেন চেয়ারম্যান, মেম্বর ও গন্যমান্য ব্যক্তিরা। এতে তারা দেড় লক্ষ টাকা জরিমানাও প্রদান করেন। জানা যায়, এলাকার অনেকের মাছের ঘের এখনো তাদের দখলে রয়েছে।


সর্বশেষ, তাদের অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে স্থানীয় আওয়ামীগ নেতা ও মেম্বর আব্দুল লতিফ এর কাছে চাদা দাবি করেন।এর পরই তিনি বাদী হয়ে এ মামলা দায়ের করেন বলে জানা যায়।


এম এস

Print