টুইটারে এক লাখ ফলোয়ার হারিয়েছেন মোদি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
টাইম নিউজ বিডি,
১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১৪:১৬:০৩
#

সামনের লোকসভা নির্বাচন। আর এর আগেই টুইটারে ১ লাখ ফলোয়ার হারালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী হারালেন প্রায় ৯ হাজার ফলোয়ার।


গত নভেম্বর মাসে ভুয়া প্রোফাইলগুলো মুছে ফেলার কর্মসূচি নিয়েছিলেন টুইটার কর্তৃপক্ষ। এর জেরেই এক ধাক্কায় এতো সংখ্যক ফলোয়ার হারালেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী।


লোকসভা নির্বাচনে প্রচারের মাধ্যম হিসেবে সোশ্যাল মিডিয়ার প্রতি বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে রাজনৈতিক দলগুলো। ২০১৪ সালের নির্বাচনে বিজেপির মধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়া নিয়ে সবচেয়ে বেশি তত্পরতা ছিল।


এই মুহূর্তে তা নিয়ে সচেতন হয়ে উঠেছে সবদলই। তাই আসন্ন নির্বাচনে সোশ্যাল মিডিয়া কতখানি প্রভাব ফেলতে পারে, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই হিসাব-নিকাশ শুরু হয়ে গিয়েছে।


এ ব্যাপারে সবচেয়ে এগিয়ে দিল্লির ইন্দ্রপ্রস্থ ইনস্টিটিউট অব ইনফরমেশন টেকনোলজি। প্রধানমন্ত্রী, বিরোধী নেতা মিলিয়ে দেশের ৯২৫টি রাজনৈতিক হ্যান্ডল নিয়ে সম্প্রতি একটি গবেষণা চালায় তারা।


তাতে দেখা গিয়েছে, নভেম্বরে টুইটারে ভুয়া প্রোফাইল মুছে ফেলা অভিযানে বহু সংখ্যক ফলোয়ার হারিয়েছেন ভারতীয় রাজনীতিকরা। গবেষণায় দেখা গিয়েছে, সবচেয়ে বেশি ফলোয়ার হারিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। ১ লাখ ফলোয়ার হারিয়েছেন তিনি।


ভুয়া প্রোফাইল কাটছাঁটের পর রাহুল গান্ধী হারিয়েছেন আট হাজার ৭০০ ফলোয়ার। দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল এবং বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ ফলোয়ার হারিয়েছেন যথাক্রমে ৪০ হাজার ৩০০ এবং ১৬ হাজার ৫০০ জন।


এছাড়াও যারা প্রচুর সংখ্যক ফলোয়ার হারিয়েছেন, সেই তালিকায় রয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিরণ রিজিজু, বিজেপির জাতীয় সাধারণ সম্পাদক ভূপেন্দ্র যাদব এবং সংসদের তথ্যপ্রযুক্তি কমিটির চেয়ারম্যান তথা বিজেপি সাংসদ অনুরাগ ঠাকুর।


এমআর

Print