ঈশ্বরদীতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ মাদকবিক্রেতা নিহত

পাবনা করেসপন্ডেন্ট
টাইম নিউজ বিডি,
১৪ মে, ২০১৯ ১৬:২৯:২৮
#

পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ হাফিজুর রহমান তিতাস (৩৩) নামে এক মাদকবিক্রেতা নিহত হয়েছেন। এসময় পুলিশের পাঁচ সদস্য আহত হয়েছে।


ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ একটি বিদেশি রিভলবার ও দুই রাউন্ড গুলি উদ্ধার করেছে।

মঙ্গলবার (১৪ মে) সকাল ১০টায় ময়নাতদন্তের জন্য সুরতাহাল শেষে মরদেহ ঈশ্বরদী থানায় নিয়ে আসা হয়। এর আগে ঈশ্বরদী উপজেলার সাঁড়া ঝাউদিয়া এলাকায় রাত আড়াইটার দিকে এ ‘বন্দুকযুদ্ধ’ হয়।


দুপুর ১২টায় থানা পুলিশের পক্ষ থেকে এ ব্যাপারে প্রেস ব্রিফিং করা হবে।


নিহত তিতাস উপজেলার সাহাপুর ইউনিয়নের আওতাপাড়া বাশেরবাঁদা গ্রামের মৃত আজিজ মোল্লার ছেলে।


ঈশ্বরদী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. জহুরুল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সোমবার (১৩ মে) দিবাগত রাতে আড়াইটার দিকে ঈশ্বরদী উপজেলার সাঁড়া ইউনিয়নের সাঁড়া ঝাউদিয়া এলাকার একটি মাঠে মাদকবিক্রেতারা মাদক ভাগাভাগি করছে। এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশের একটি দল সেখানে অভিযান চালায়। এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে মাদকবিক্রেতারা পুলিশের ওপর ইট পাটকেল নিক্ষেপ ও গুলি চালায়। পুলিশও আত্মরক্ষার্থে পাল্টা গুলি চালালে মাদকবিক্রেতারা পালিয়ে যায়।


পরে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে গুলিবিদ্ধ হাফিজুর রহমানকে উদ্ধার করে ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পর চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।


‘বন্দুকযুদ্ধে’ পুলিশের পাঁচ সদস্য আহত হয়েছেন বলে দাবি করেছেন থানার ওসি বাহাউদ্দীন ফারুকী। তিনি জানান, আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।


হাফিজুর রহমানের নামে হত্যা, ডাকাতি বিস্ফোরক ও মাদকসহ ১৭টি মামলা আছে বলেও জানান এই কর্মকর্তা।

Print