পুলিশের গাড়িতে বিস্ফোরিত বোমা আগেই পেতে রাখা ছিল: ডিএমপি

স্টাফ রিপোর্টার
টাইম নিউজ বিডি,
২৭ মে, ২০১৯ ১৮:৩২:৩৮
#

রাজধানীর মালিবাগ মোড়ে পুলিশের গাড়িতে বিস্ফোরিত ককটেলটি স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি শক্তিশালী বলে জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া।  


আজ (২৭ মে) সোমবার সকালে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে বিস্ফোরণে আহত রিকশা চালক লাল মিয়াকে দেখতে গিয়ে তিনি এই তথ্য জানান।


ডিএমপি কমিশনার বলেন, “মালিবাগ মোড়ে বিস্ফোরিত ককটেলটি স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি শক্তিশালী ছিল। এটি একটি ইম্প্রোভাইজড ককটেল। আগে থেকেই তা গাড়িতে পেতে রাখা হয়েছিল।”


তিনি আরও বলেন, “একটি মহল জনমনে ভীতিকর পরিস্থিতি সৃষ্টির জন্য এই ধরনের অপতৎপরতা চালাচ্ছে। তারা পুলিশের মনোবল নষ্ট করার চেষ্টা করছে।”


আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, “ঘটনার পর আমাদের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট ও বোম্ব ডিসপোজাল টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। তারা আলামত সংগ্রহ করেছে। প্রাথমিকভাবে আমাদের কাছে মনে হয়েছে, আগে থেকেই গাড়িতে ককটেল পেতে রাখা হয়েছিল।”


ডিএমপি কমিশনার বলেন, ককটেল বিস্ফোরণে আহত রিকশাচালক লাল মিয়া মাথার স্কালব ভেঙে ব্রেইনে চাপ লেগেছে। রোববার রাতেই তার মাথার অস্ত্রোপচার করা হয়েছে। এখন সবকিছু নরমাল আছে। তবে সে এখনও ঝুঁকিপূর্ণ। তার চিকিৎসার জন্য যা যা করা দরকার সবকিছুই করা হচ্ছে।


এর আগে তিনি মালিবাগের ঘটনায় আহত এএসআই রাশেদা খাতুনকে দেখতে রাজারবাগে কেন্দ্রীয় পুলিশ লাইনস হাসপাতালে যান। রাতে রাশেদাকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে রাজারবাগে পাঠানো হয়েছিল।


গতকাল (২৬ মে) রোববার রাত ৮টা ৫৩ মিনিটে মালিবাগমোড়ে পুলিশের একটি পিকআপ ভ্যানে বিস্ফোরণ হয়ে আগুন লেগে যায়। এতে পুলিশের সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) রাশেদা আক্তার, রিকশাচালক লাল মিয়া ও এক পথচারী আহত হন।


এমবি 

Print