নরসিংদীতে গৃহবধূকে গলা কেটে হত্যা, স্বামী পলাতক

নরসিংদী করেসপন্ডেন্ট
টাইম নিউজ বিডি,
০৭ জুন, ২০১৯ ১৭:৪০:৫৯
#

নরসিংদীর শিবপুরে ঘরের ভেতর থেকে নাজমা বেগম (২৫) নামে এক গৃহবধূর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার (৭ জুন) সকালে শিবপুরের কারারচর এলাকায় একটি ভাড়া বাসার নিজ কক্ষ থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়।


হত্যার শিকার এক সন্তানের জননী নাজমা বেগম (২৫) রায়পুরা উপজেলার বাহাদুরপুর গ্রামের মোন্তাজ উদ্দিনের মেয়ে।


এ ঘটনার পর থেকে তার স্বামী নজরুল ইসলাম পলাতক রয়েছের। পারিবারিক কলহের জেরে নাজমাকে হত্যা করা হয়েছে বলে ধারণা করছে পুলিশ।


এলাকাবাসী ও পুলিশ জানায়, নাজমার স্বামী নজরুল ইসলাম টঙ্গীর বিসিক এলাকার একটি তৈরি পোশাক কারখানার কর্মী। তার গ্রামের বাড়ি কুড়িগ্রামের বুড়িমারিতে। একমাস আগে এই পরিবারটি শিবপুরের কারারচর এলাকায় ভাড়া বাসায় ওঠে।


শুক্রবার সকালে তাদের আট মাস বয়সী শিশুর চিৎকার শুনে প্রতিবেশিরা ঘরে ঢুকে নাজমার গলাকাটা মরদেহ দেখতে পান। তারা রক্তমাখা অবস্থায় শিশুটিকে কান্না করতে দেখেন। খবর পেয়ে পুলিশ এসে নাজমার মরদেহ উদ্ধার করে।


বৃহস্পতিবার (৬ জুন) রাতের কোনও এক সময় নজরুল ইসলাম তার স্ত্রীকে গলা কেটে হত্যার পর বাইরে থেকে দরজা বন্ধ করে পালিয়ে গেছে বলে ধারণা করছে পুলিশ।


শিবপুর থানার উপ-পুলিশ পরিদর্শক আনোয়ার হোসেন জানান, পারিবারিক কলহের জের ধরে এ হত্যার ঘটনা ঘটতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। হত্যার প্রকৃত কারণ উদঘাটন ও অভিযুক্তকে গ্রেফতারের চেষ্টা চালানো হচ্ছে।

Print