শ্রীলঙ্কার পুলিশ প্রধান ও সাবেক প্রতিরক্ষা সচিব গ্রেপ্তার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
টাইম নিউজ বিডি,
০৩ জুলাই, ২০১৯ ১৪:৪৪:৩৬
#

শ্রীলঙ্কায় ইস্টার সানডে প্রার্থনায় ভয়াবহ আত্মঘাতী হামলার ঘটনায় দেশটির পুলিশ প্রধান এবং সাবেক প্রতিরক্ষা সচিবকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।


গত ২১ এপ্রিল দেশটির খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের ওপর ওই সন্ত্রাসী হামলায় নিহত হন ২৫৩ জন মানুষ। আহত হন আরও ৫০০ জন।


এদিন তিনটি গির্জা এবং তিনটি হোটেলে এক যোগে মোট ছয়টি বিস্ফোরণ ঘটে। একইদিন আরও দুই জায়গায় হামলার ঘটনা ঘটে।


রয়টার্স জানায়, শ্রীলঙ্কার পুলিশ প্রধান পুজুথ জয়সুন্দর এবং সাবেক প্রতিরক্ষা সচিব হেমাসিরি ফার্নান্দোকে এই ঘটনায় দায়িত্ব অবহেলার জন্য অভিযুক্ত করা হয়েছে।


তবে তুরস্কের ইয়েনি সাফাক, যুক্তরাষ্ট্রের দ্য ডিফেন্স পোস্টসহ একাধিক আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম জানাচ্ছে, সোমবার এই দুজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।


দেশটির মুখপাত্র রুয়ান গুনাসেকারার বরাত দিয়ে এই দুজনের গ্রেপ্তার সংবাদ প্রকাশ করেছে উক্ত সংবাদমাধ্যমগুলো।


আগের দিন অ্যাটর্নি জেনারেল শ্রীলঙ্কার ইতিহাসে এই ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলার ঘটনায় অভিযোগ আনেন পুজুথ এবং হেমাসিরির বিরুদ্ধে।


তিনি বলেন, “গোয়েন্দা তথ্য পেয়েও এই হামলা ঠেকাতে তাদের ব্যর্থতার কারণেই মানবতার বিরুদ্ধে এত বড় অপরাধ সংগঠিত হয়েছে।”


হামলার কয়েক দিনের মধ্যেই ব্যর্থতার দায় মাথায় নিয়ে পদত্যাগ করেছিলেন প্রতিরক্ষা সচিব হেমাসিরি।


গোয়েন্দা সতর্কবার্তা নিয়ে বিতর্কের প্রেক্ষাপটে প্রেসিডেন্ট দেশের পুলিশ প্রধান ও প্রতিরক্ষা সচিবকে পদ ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন মাইথ্রিপালা সিরিসেনা। তবে পদত্যাগে রাজি হননি পুলিশ প্রধান পুজুথ।


প্রসঙ্গত, স্থানীয় মুসলিম মৌলবাদী সংগঠন ন্যাশনাল তওহিদ জামায়াতকে (এনটিজে) এ হামলার জন্য দায়ী করে শ্রীলঙ্কা সরকার।


পরবর্তীতে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন আইএস এ সন্ত্রাসী হামলার দায় স্বীকার করে। এনটিজে-কে দিয়েই এ হামলা চালায় আইএস। হামলাকারীদের ছবিও প্রকাশ করে তারা।


জেড

Print